ঢাকা ০৬:৫৯ অপরাহ্ন, সোমবার, ১৫ এপ্রিল ২০২৪, ২ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

হঠাৎ এমন আদেশে বরিশালের সর্বস্তরের চিকিৎসকরা হতভম্ব

  • স্টাফ রিপোর্টার
  • আপডেট সময় : ০২:২০:০২ অপরাহ্ন, রবিবার, ২৩ জুলাই ২০২৩
  • ৫৬ খবরটি দেখা হয়েছে

বরিশাল শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজের নতুন অধ্যক্ষ হিসাবে নিয়োগ পেয়েছেন প্রফেসর ফায়জুল বাসার। তিনি পটুয়াখালী মেডিকেল কলেজের অধ্যক্ষ হিসাবে কর্মরত ছিলেন।
আর বরিশাল শেবামেক’র অধ্যক্ষ প্রফেসর ডাঃ মোঃ মনিরুজ্জামান শাহিনকে পটুয়াখালী মেডিকেল কলেজের অধ্যক্ষ পদে নিয়োগ প্রদান করা হয়েছে। গত সপ্তাহে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় এই প্রজ্ঞাপন জারি করলেও মন্ত্রণালয়ের ওয়েব সাইটে এখনো তা প্রকাশ করা হয়নি।
তবে উভয় প্রতিষ্ঠান কর্তৃপক্ষ ও মনিরুজ্জামান শাহিন এ তথ্যের সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।
মনিরুজ্জামান শাহিন বলেন, মন্ত্রণালয় বদলী করেছে এটি সত্য। কিন্তু সত্যিকার অর্থে হঠাৎ করে এমন আদেশে আমি সহ বরিশালের সর্বস্তরের চিকিৎসকরা বিস্মিত হয়েছে। তিনি বলেন, রাজনৈতিক পরিচয় বাদই দিলাম। যোগ্যতা, দক্ষতা, সিনিয়রিটিসহ সব মিলিয়ে আমার ঢাকার শীর্ষ যে কোন হাসপাতালে দায়িত্ব পাওয়ার কথা। কিস্তু সেটা তো করলোই না উপরন্ত আরো এক ধাপ নিচে দিয়ে বিভাগীয় শহর থেকে জেলায় দিয়েছে। আমি এ বিষয়ে সচিব স্যারের সাথে দেখা করে কথা বলেছি।
মনিরুজ্জামান শাহিন দুই মেয়াদে শেবামেক’র অধ্যক্ষ হিসাবে দায়িত্ব পালন করেছেন এবং প্রফেসর ফায়জুল বাসার বরিশাল শেবামেক এর প্যাথলজি বিভাগের বিভাগীয় প্রধান ছিলেন। এর পর তাকে পদোন্নতি প্রদান করে পটুয়াখালী মেডিকেল কলেজের অধ্যক্ষ হিসাবে নিয়োগ দেওয়া হয়।

ট্যাগ :

দাকোপের বাজুয়ায় মাদক ব্যবসায়ীদের বিরুদ্ধে মানববন্ধন

হঠাৎ এমন আদেশে বরিশালের সর্বস্তরের চিকিৎসকরা হতভম্ব

আপডেট সময় : ০২:২০:০২ অপরাহ্ন, রবিবার, ২৩ জুলাই ২০২৩

বরিশাল শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজের নতুন অধ্যক্ষ হিসাবে নিয়োগ পেয়েছেন প্রফেসর ফায়জুল বাসার। তিনি পটুয়াখালী মেডিকেল কলেজের অধ্যক্ষ হিসাবে কর্মরত ছিলেন।
আর বরিশাল শেবামেক’র অধ্যক্ষ প্রফেসর ডাঃ মোঃ মনিরুজ্জামান শাহিনকে পটুয়াখালী মেডিকেল কলেজের অধ্যক্ষ পদে নিয়োগ প্রদান করা হয়েছে। গত সপ্তাহে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় এই প্রজ্ঞাপন জারি করলেও মন্ত্রণালয়ের ওয়েব সাইটে এখনো তা প্রকাশ করা হয়নি।
তবে উভয় প্রতিষ্ঠান কর্তৃপক্ষ ও মনিরুজ্জামান শাহিন এ তথ্যের সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।
মনিরুজ্জামান শাহিন বলেন, মন্ত্রণালয় বদলী করেছে এটি সত্য। কিন্তু সত্যিকার অর্থে হঠাৎ করে এমন আদেশে আমি সহ বরিশালের সর্বস্তরের চিকিৎসকরা বিস্মিত হয়েছে। তিনি বলেন, রাজনৈতিক পরিচয় বাদই দিলাম। যোগ্যতা, দক্ষতা, সিনিয়রিটিসহ সব মিলিয়ে আমার ঢাকার শীর্ষ যে কোন হাসপাতালে দায়িত্ব পাওয়ার কথা। কিস্তু সেটা তো করলোই না উপরন্ত আরো এক ধাপ নিচে দিয়ে বিভাগীয় শহর থেকে জেলায় দিয়েছে। আমি এ বিষয়ে সচিব স্যারের সাথে দেখা করে কথা বলেছি।
মনিরুজ্জামান শাহিন দুই মেয়াদে শেবামেক’র অধ্যক্ষ হিসাবে দায়িত্ব পালন করেছেন এবং প্রফেসর ফায়জুল বাসার বরিশাল শেবামেক এর প্যাথলজি বিভাগের বিভাগীয় প্রধান ছিলেন। এর পর তাকে পদোন্নতি প্রদান করে পটুয়াখালী মেডিকেল কলেজের অধ্যক্ষ হিসাবে নিয়োগ দেওয়া হয়।